ঢাকা, শনিবার ১৫ আগস্ট ২০২০ | ৩১ শ্রাবণ ১৪২৭

Live

ডিএপি সারের দাম এখন কেজিতে ১৬ টাকা

নিজস্ব প্রতিবেদক

১১:১৭, ৫ ডিসেম্বর ২০১৯ বৃহস্পতিবার

কৃষক দরদি মানবিক মাননীয় প্রধানমন্ত্রী কৃষককে লাভবান করার জন্য কৃষউৎপাদন খরচ কামনোর জন্য ডিএপি সারের দাম কেজিপ্রতি ৯টাকা কমানো হলো। পূর্বে এর মুর্ল ছিল ২৫ টাকা এখন প্রতি কেজি ডিএপি ১৬ টাকা।ডিলার পর্যায় বর্তমান ২৩ টাকার পরিবর্তে এখন ১৪ টাকা কেজি। এর ফলে ডিএপি সারে সরকারের বছরের প্রণোদনা বাবদ ৮শ কোটি টাকা ব্যয় হবে,তবে এটাকা কৃষি মন্ত্রণালয়ের অনুকূলে প্রণোদনা বাবদ বরাদ্দ ৯হাজার কোটি টাকা পুরণ করা হবে।

গতকাল ৪ ডিসেম্বর(বুধবার)কৃষিমন্ত্রী ড.মো:আব্দুর রাজ্জাক এমপি মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে এক প্রেস ব্রিফ্রিংএ সাংবাদিকদের একথা জানান।
কৃষিমন্ত্রী বলেন, কৃষকের উৎপাদন খরচ হ্রাস,সৃষম সার ব্যবহারে কৃষকগণকে উদ্বুদ্ধকরণ,কৃষিক্ষেত্রে গাছের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধিসহ পরিবেশ বান্থব টেকসই খাদ্য নিরাপত্তার স্বার্থে সরকার ডাই এ্যামোনিয়াম ফসফেট(ডিএপি)সারের মূল্য পুরনায় গ্রাসের সিদ্বান্ত গ্রহণ করেছে।সরকার এ নিয়ে পাঁচ দফায় সারের মুল্য কমালো।৮০ টাকার টিএসপি সার ২২ টাকা,৭০ টাকার এমওপি ১৫ টাকা ও ৯০ টাকার ডিএপি ১৬ টাকায় দেওয়া হচ্ছে।ডিএপি সারে ১৮শতাংশ নাইট্রোজেন(এ্যামোনিয়া ফর্মে) এরং টিএসপি সারের সমপরিমানের ফসফেট(অথৎ ৪৬ শতাংশ P2o5) রয়েছে। ফলে এই সার প্রয়োগে ইউরিয়া ও টিএসপি উভয় সারের সুফল পাওয়া যায়। ফলে ইউরিয়া ও টিএসপি সারের ব্যভহার হ্রাস পেয়ে অর্থ ও শ্রম উভয়ের সাশ্রয় হয়। ডিএপি সারের মূল্য হ্রাসের ফলে কৃষকের ঋৎপাদন খরচ উল্লেখ্যযোগ্যভাবে হ্রাস পাবে।

আব্দুর রাজ্জাক বলেন, আমাদের কৃষকগণ অপেক্ষাকৃত কম মূল্য ও অভ্যাসগত কারণে ইউরিয়া সার অধিক ব্যবহার করে থাকেন। ইউরিয়া সার ব্যবহারের প্রভাবে উদ্ভিদের ---বৃদ্ধি পায়। ফলে সবুজ উদ্ভিদ আরো সবুজ গয় এবং কীটপতঙ্গের আকর্ষণ বৃদ্ধি পায়। এত ফসলের জমিতে বিভিন্ন ক্ষতিকর পোকার আক্রমনসহ রোগের প্রাদুর্ভাব বেড়ে যায়।ফলশ্রুতিতে কীটনাশকের ব্যভহার বৃদ্ধি পায়। াপরদিকে ডিএপি সার ফসফেট ও নাইট্রোজেন সহযোগে একটি মিশ্র সার হওয়ায়,ডিএপি সার ব্যবহারের ফলে গাছ শক্তিশালি হয়,ফসলের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ে ও ফসল পুষ্ট হয়,ফলে কীটনাশকের ব্যভহার হ্রাস পাবে। এর ফলে মূল্যবান বৈদেশিক মুদ্রা ব্যয়ে ক্ষতিকর কীটনাশকের আমদানি কমে যাবে। সেই হিসেবে ডিএপি সার মান সম্পন্ন ফসল ঋৱপাদনে কার্যকর এবঙ পরিবেশ বান্ধন।

কৃষি কাগজ/এস এম