ঢাকা, সোমবার ২১ অক্টোবর ২০১৯ | ৫ কার্তিক ১৪২৬

Live

আটক ২ থাই-জাহাজের ব্যাপারে প্রতিমন্ত্রী ও থাই রাষ্ট্রদূতের বৈঠক

(মোঃ শাহ আলম)

২২:২৩, ৩ অক্টোবর ২০১৯ বৃহস্পতিবার

ঢাকা, ০৩ অক্টোবর, ২০১৯: ২১ আগস্ট বাঙ্গালাদেশের জলসীমায় অবৈধভাবে প্রবেশকারী ২ থাই-জাহাজ যথাক্রমে Sea Wind ও Sea View এবং থাই-ক্রুদের ব্যাপারে আজ মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী আশরাফ আলী খান খসরু এমপি ও রাষ্ট্রদূত Phothong Humphreys এর মধ্যে দ্বিপাক্ষিক বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়।

প্রতিমন্ত্রী থাই-ক্রুদের দ্বারা পরিচালিত মার্চেন্ট জাহাজ ২টিকে ফিশিং জাহাজ বলে পরিচয় দিয়ে বাংলাদেশের সমুদ্রসীমায় অবৈধভাবে প্রবেশের বিস্তারিত তথ্য রাষ্ট্রদূতকে অবহিত করেন। জাহাজ ২টি মেরামতের নামে মিথ্যে তথ্যপ্রদানের মধ্যমে কর্ণফুলী নদীতে প্রবেশের পর বর্তমানে চট্টগ্রামের কন্টিনেন্টাল মেরিন ফিশারিজের এর জেটিতে অবস্থায় করছে। থাই-রাষ্ট্রদূত জাহাজের কাগজপত্রসহ ক্রুদের ব্যাপারে প্রকৃত ঘটনা জানতে এবং প্রয়োজনীয় ব্যবস্থাগ্রহণের জন্য আগ্রহপ্রকাশ করেন।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, থাই-ক্রুগণ নিজেদের পরিচয় জানাতে কিংবা পাসপোর্ট প্রদর্শনে অস্বীকৃতি জানানোর ফলে জাহাজসহ তাদেরসম্পর্কে পরিষ্কার তথ্য এখনো জানা যাচ্ছে না। জাহাজ ২টি নিবন্ধনকৃত প্রকৃত নামবদল করে ভুয়ানামে বাংলাদেশে ঢোকে। পোর্ট ক্লিয়ারেন্স অনুযায়ী ২৬ আগস্ট বাংলাদেশ ত্যাগ করে তাদের কম্বোডিয়ায় যাবার কথা ছিল। তাই প্রকৃত ঘটনা উদ্ঘাটনে মন্ত্রণালয়ের তদন্ত কমিটি কাজ করছে, যার রিপোর্ট শিগগির পাওয়া যাবে।

থাই-রাষ্ট্রদূত ক্রুদের সাথে কথাবলার জন্য আগ্রহপ্রকাশ করলে প্রতিমন্ত্রী তাকে সর্বোতভাবে সহায়তার আশ্বাস দেন। থাইল্যান্ড বন্ধুপ্রতীম দেশ হওয়ায় ক্রুদের এখনো আইনের আওতায় আনা হয়নি এবং তাদের ওপর কোনোরকম শারীরিক বা মানসিক চাপপ্রয়োগও করা হয়নি বলে রাষ্ট্রদূত জানান।

এসময় মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব কাজী ওয়াসি উদ্দিন, তৌফিকুল আরিফ (ব্লু-ইকোনমি), যুগ্মসচিব অসীম কুমার বালা, মাহবুবা পান্না, শ্যামল চন্দ কর্মকার প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। থাই-রাষ্ট্রদূতের সাথে উপস্থিত ছিলেন দূতাবাসের মিনিস্টার কাউন্সেলর Kraichok Arunparojkul  ও Pawarnawt Simaskul 

কৃষি কাগজ/এস এম